হবিগঞ্জ ০৯:০০ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৭ জুন ২০২৪, ৩ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
Logo চা-বাগান এলাকায় এই প্রথম বঙ্গবন্ধুর ম্যুরাল স্থাপন করলেন ব্যারিস্টার সুমন Logo এবার ঈদের ছুটিতে পর্যটকদের জন্য নতুন রূপে চুনারুঘাটের পর্যটন এলাকাকে সাজালেন ব্যারিস্টার সুমন Logo সাম্যের ঈদ চাই !!  মো: মাহমুদ হাসান  Logo নিজের পালিত গরু এমপি সুমনকে উপহার দিলেন এক ভক্ত Logo শায়েস্তাগঞ্জে ইয়াবাসহ মুদি মাল ব্যবসায়ী গ্রেফতার Logo শ্রেষ্ঠ এএসআই চুনারুঘাট থানার মনির হোসেন Logo দ্বিতীয় গোপালগঞ্জে’ আওয়ামী বিরোধীদের উত্থানের নেপথ্যে কী? Logo চুনারুঘাটে আরো ৭১টি পরিবার পাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রীর নতুন ঘর Logo চুনারুঘাটে ৭দিন ব্যাপী ভূমিসেবা সপ্তাহের উদ্বোধন  Logo ৪০ বছরের পুরাতন খোয়াই নদীতে স্পিডবোট ভাসালেন ব্যারিস্টার সুমন

বাহুবলে রাতের আধারে প্রবাসীর ১৮ টি ফসলি গাছ কর্তন, লাখ টাকা ক্ষয়ক্ষতি

বাহুবলের মানিকা গ্রামে রাতের আধারে প্রবাসী আব্দুল হকের আম গাছ ও সুপারি গাছ সহ বিভিন্ন প্রজাতির প্রায় ১৮টি গাছ কর্তন করেছে দুর্বৃত্তরা। গত রবিবার ২১ এপ্রিল দিবাগত রাতে উপজেলার সাতকাপন ইউনিয়নের মানিকা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার ৩নং সাতকাপন ইউনিয়নের মানিকা গ্রামের মৃত কাদির মিয়ার ছেলে প্রবাসী মোঃ আব্দুল হক দীর্ঘদিন আগে বাড়ির দক্ষিণ পাশে একটি নতুন বাড়ি করার জন্য কয়েক বিঘা জমিতে বাউন্ডারি দিয়ে আম গাছ সহ বিভিন্ন প্রজাতির ফসলি গাছ রোপণ করেন।

কয়েক বছরে গাছগুলো বড় হয়ে ফসল দেয়ার উপযোগী হয়ে উঠে। গত রবিবার দিবাগত রাতের আধারে দুর্বৃত্তরা প্রায় ১৮টি গাছ কেটে উজাড় করে দিয়েছে। ভুক্তভোগী আব্দুল হক সোমবার সকালে নতুন বাড়িতে গিয়ে তার অসংখ্য ফসলি গাছ কর্তনের দৃশ্য দেখতে পান।

আব্দুল হক মিয়া ঘটনাটি তাৎক্ষণিক সাতকাপন ইউপি চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোঃ আব্দুর রাজ্জাক ও স্থানীয় ময়মুরুব্বিদের জানালে এলাকায় সমালোচনার সৃষ্টি হয়।
এ ঘটনার খবর পেয়ে সংবাদকর্মীরা সরেজমিনে ঘটনাস্থলে গেলে গাছ কর্তনের দৃশ্য গুলো দেখা যায়।

ভুক্তভোগী আব্দুল হক জানান,প্রতিবেশী মৃত আব্দুল মালিক ওরফে টেকাই মিয়ার ছেলে মোঃ আব্দুল আউয়াল, আফছর মিয়া ও আছকির মিয়ার সাথে পূর্ব বিরোধ রয়েছে।

তারা এলাকার চিহ্নিত মানুষ,ওরা আমার ও আমার পরিবারের ক্ষতি করার জন্য দীর্ঘদিন যাবত অপচেষ্টায় লিপ্ত রয়েছে। তিনি আরও জানান, আমার ধারণা ওরাই পূর্ব পরিকল্পিত ভাবে এ ঘটনা ঘটিয়ে আমার ব্যাপক ক্ষতিসাধন করেছে।

ট্যাগস :
আপলোডকারীর তথ্য

খন্দকার আলাউদ্দিন

হ্যালো, আমি খন্দকার আলাউদ্দিন, আপনাদের চারিপাশের সংবাদ দিয়ে আমাদের সহযোগিতা করুন।
জনপ্রিয় সংবাদ

চা-বাগান এলাকায় এই প্রথম বঙ্গবন্ধুর ম্যুরাল স্থাপন করলেন ব্যারিস্টার সুমন

বাহুবলে রাতের আধারে প্রবাসীর ১৮ টি ফসলি গাছ কর্তন, লাখ টাকা ক্ষয়ক্ষতি

আপডেট সময় ০৯:০২:৪৪ অপরাহ্ন, সোমবার, ২২ এপ্রিল ২০২৪

বাহুবলের মানিকা গ্রামে রাতের আধারে প্রবাসী আব্দুল হকের আম গাছ ও সুপারি গাছ সহ বিভিন্ন প্রজাতির প্রায় ১৮টি গাছ কর্তন করেছে দুর্বৃত্তরা। গত রবিবার ২১ এপ্রিল দিবাগত রাতে উপজেলার সাতকাপন ইউনিয়নের মানিকা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার ৩নং সাতকাপন ইউনিয়নের মানিকা গ্রামের মৃত কাদির মিয়ার ছেলে প্রবাসী মোঃ আব্দুল হক দীর্ঘদিন আগে বাড়ির দক্ষিণ পাশে একটি নতুন বাড়ি করার জন্য কয়েক বিঘা জমিতে বাউন্ডারি দিয়ে আম গাছ সহ বিভিন্ন প্রজাতির ফসলি গাছ রোপণ করেন।

কয়েক বছরে গাছগুলো বড় হয়ে ফসল দেয়ার উপযোগী হয়ে উঠে। গত রবিবার দিবাগত রাতের আধারে দুর্বৃত্তরা প্রায় ১৮টি গাছ কেটে উজাড় করে দিয়েছে। ভুক্তভোগী আব্দুল হক সোমবার সকালে নতুন বাড়িতে গিয়ে তার অসংখ্য ফসলি গাছ কর্তনের দৃশ্য দেখতে পান।

আব্দুল হক মিয়া ঘটনাটি তাৎক্ষণিক সাতকাপন ইউপি চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোঃ আব্দুর রাজ্জাক ও স্থানীয় ময়মুরুব্বিদের জানালে এলাকায় সমালোচনার সৃষ্টি হয়।
এ ঘটনার খবর পেয়ে সংবাদকর্মীরা সরেজমিনে ঘটনাস্থলে গেলে গাছ কর্তনের দৃশ্য গুলো দেখা যায়।

ভুক্তভোগী আব্দুল হক জানান,প্রতিবেশী মৃত আব্দুল মালিক ওরফে টেকাই মিয়ার ছেলে মোঃ আব্দুল আউয়াল, আফছর মিয়া ও আছকির মিয়ার সাথে পূর্ব বিরোধ রয়েছে।

তারা এলাকার চিহ্নিত মানুষ,ওরা আমার ও আমার পরিবারের ক্ষতি করার জন্য দীর্ঘদিন যাবত অপচেষ্টায় লিপ্ত রয়েছে। তিনি আরও জানান, আমার ধারণা ওরাই পূর্ব পরিকল্পিত ভাবে এ ঘটনা ঘটিয়ে আমার ব্যাপক ক্ষতিসাধন করেছে।